মিউচুয়াল ফান্ড কী । কীভাবে মিউচুয়াল ফান্ডে ইনভেস্ট করবেন (Mutual Funds)

অর্থ উপার্জন করা একটি পেশা এবং অর্থ মাল্টিপ্লাই (multiply) করা হলো একটি কলা (art)। আমাদের অর্থ উপার্জন করার পাশাপাশি অর্থ মাল্টিপ্লাই করার কলা (art), অবশ্যই সকলের শেখ দরকার। কারণ অর্থ মাল্টিপ্লাই করার কলা (art) যদি না শেখা হয় তাহলে জীবনে যতই ইনকাম করুন না কেনো আপনি মৃতুর আগে পর্যন্ত আর্থিক স্বাধীনতা (financial freedom) পাবেন না। তাই আপনি যদি একবার অর্থ মাল্টিপ্লাই বা কম্পাউন্ডিং শিখে যান তাহলে আপনি খুব অল্প সময়ের মধ্যে financial freedom পেয়ে যাবেন। অর্থ মাল্টিপ্লাই করা অনেক রকমের মাধ্যম তার মধ্যে আমরা মিউচুয়াল ফান্ড (Mutual Fund) সম্পর্কে আলোচনা করবো। যেখানে আপনি অল্প রিস্কে (risk) অনেক ভালো পরিমান retun নিতে পারেন।

আমরা সকলে যে টাকা উপার্জন করিনা কেন, ওই টাকা (অর্থ) সেভিং (saving) করার জন্য আমরা ব্যাঙ্কে জমা করি কারণ ব্যাঙ্কে টাকা রাখলে ওই টাকার উপর নির্দিষ্ট (3-4%) পরিমান সুদ (interest) পাওয়া যায় আবার কেউ কেউ FD (Fixed Deposid) করে কারণ FD-তে সেভিং account এর থেকে বেশি (6-8%) ইন্টারেস্ট পাওয়া যায়। আপনি ভাবছেন যে, আমি আমার টাকাকে ব্যাঙ্কে বাড়িয়ে নিচ্ছি এতে তো আমার প্রফিট (profit) হচ্ছে কিন্তু আপনি কি জানেন বছরে আপনি কত টাকাই বাড়াতে পারছেন! আমি বলবো আপনি যদি saving account এ টাকা রাখেন তাহলে আপনি অর্থ বাড়ানোর বদলে অর্থ loss করছেন। কারণ প্রতি বছর আমাদের দেশে মূল্য বৃদ্ধি (inflation) বেড়েই চলেছে। 2021 সালের আমাদের ভারতে inflaction rate বৃদ্ধি পেয়েছিলো 5.59%.

যারা মূল্য বৃদ্ধি (inflaction) কি এই বিষয়টি না বোঝেন তাহলে আপনার জন্য এই প্যারাগ্রাফ টি, আমার যে সকল দ্রব, প্রোডাক্ট ব্যবহার করছি সেই সকল জিনিসের প্রতি বছর দাম একটু একটু করে বৃদ্ধি হয়ে যাচ্ছে এই ঘটনাকে মূল্য বৃদ্ধি বা Inflaction rate বলা হচ্ছে। আপনি যদি মার্কেটের যান তাহলে অবশ্যই inflaction লক্ষ করবেন।

চলুন আবার আমাদের মূল বিষয়ে ফিরে যাওয়া যাক, প্রতি বছর যদি আমাদের দেশে 6% হিসাবে inflaction rate বাড়তে থাকে তাহলে আপনি যদি ব্যাংকে 4% সুদে অর্থ রাখেন তাহলে আপনার ওই টাকা তার মূল্য (value) 2% হিসাবে loss করছে। তাহলে আপনি ব্যাঙ্কে টাকা রেখে কোথায় টাকা বাড়াতে পারছেন। টাকা বৃদ্ধি করার বদলে আপনি তো 2% loss করছেন। ওদিকে আপনি যদি FD করেন তাহলে মাত্র 1-2% profit করতে পারবেন। কিন্তু এই 2% এ আপনার কিবা হবে। তাই বলছি আমাদের সকলকে অর্থ মাল্টিপ্লাই করার কলা (art) শেখা দরকার।

যারা অর্থের (টাকার) ব্যপারে খুবই strick তারা কখনো চাইবে না যে তাদের টাকা কখনো না যেন value loss করে। তাই তারা তাদের অর্থকে ইনভেস্ট করে রিয়েল এস্টেট, গোল্ড, স্টক মার্কেটের উপর কিন্তু এগুলোতে invest করে অর্থ উপার্জন করার জন্য আপনাকে Time, Risk ও Money সবকিছু দিতে হবে। আপনি যদি saving account টাকা রেখে ওই টাকাকে বাড়াতে চান তাহলে আপনাকে অর্থের পাশাপাশি সময় দিতে হবে কিন্তু আপানকে কোনো রকম risk নিতে হচ্ছে না তাই profit খুব কম। আপনি যদি ওই টাকা দীর্ঘ সময়ের জন্য মার্কেটে ইনভেস্ট করতেন তাহলে আপনি saving account এর থেকে বেশি profit পেতেন কিন্তু আপনাকে অবশ্যই risk এর মধ্যে থাকতে হবে। কথায় আছে “রিস্ক হে তো ইশক হে”.কিন্তু আপনি যদি রিস্ক নিতে ভয় পান তাহলে এবং ইনভেস্টমেন্ট করতে চান তাহলে আপনি মিউচুয়াল ফান্ডে (Mutual Funds) এর মাধ্যমে ইনভেস্টিং শুরু করতে পারে এবং FD থেকে বেশি 12-20% profit earn করতে পারবেন।

মিউচুয়াল ফান্ড কী (What is mutual funds in bengali):

মিউচুয়াল ফান্ডস হলো এমন এক asset management company (AMC). আপনি যদি তাদের উপর অর্থ (টাকা) invest করন তাহলে তারা আপানর অর্থকে ফিন্যান্স এক্সপার্ট এর সাহায্যে মার্কেটে বিভিন্ন জায়গায় ইনভেস্ট করে দেবে এবং যত profit হবে তার 1-2% তারা নিজের কাছে রেখে দেয় আর profit সহ বাকি সব টাকা কাস্টোমারকে ফেরত দিয়ে দেয়। এই ভাবে মিউচুয়াল ফান্ডস কাজ করে। বর্তমানে বহু ব্যাঙ্ক এবং কোম্পানি নিজেদের Asset menagement company বা মিউচুয়াল ফান্ড খুলে রেখেছে।

যেমনঃ ICICI Prudential Technology Direct Plant Growth, Tata Digital india Fund Direct Growth, Aditya Birla Sun Life Digital India Fund Direct Growth, Kotak Small Cap Fund Direct Fund, Axis Small Cap Fund Direct Growth ইত্যাদি।

মিউচুয়াল ফান্ড এমন একটি ফান্ড ফান্ড ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম যেখানে আপনি এক সঙ্গে অনেক টাকা ইনভেস্ট করতে পারেন আবার SIP (Systematic investment plan) মাধ্যমে প্রতি মাসে অল্প অল্প করে আয়নার পছন্দের মিউচুয়াল ফান্ড কোম্পানিতে ইনভেস্ট করতে পারেন। আপনি আপনার ইনভেস্টের উপর চক্রবৃদ্ধির সুদ (compounding rate) হিসাবে profit earn করতে পারবেন।

যেমনঃ ধরুন আপনি আজ কে মিউচুয়াল ফান্ডে 25000 টাকা ইনভেস্ট করলেন 5 বছরের জন্য এবং আপনি retun পাচ্ছেন 20% করে। তাহলে ৫ বছর পরে আপনার 25000 টাকা 62,208 টাকাতে পরিণত হবে। এক্ষেত্রে আমরা retun rate টা 20% ধরেছি কিন্তু বাস্তবে আপনি মিউচুয়াল ফান্ডে কোনো fixed পার্সেন্টেজে retun পাবেন না আপনি 20% এর বেশি বা কম পেতে পারেন 5 বছরের মধ্যে। আপনাকে বোঝানোর জন্য এখানে আমি retun rete টাকে fixed করে নিয়েছি।

বর্তমানে এমন এমন বহু মিউচুয়াল ফান্ড রয়েছে যারা বছরে 30-40% পর্যন্ত retun দিচ্ছে। এই retun এর উপর ভিত্তি করে মিউচুয়াল ফান্ডকে তিনটি সেকশনে ভাগ করার হয়ে।

Equity mutual funds:

Equity mutual হলো High risk এবং High retun মিউচুয়াল ফান্ড। এই মিউচুয়াল ফান্ডের টাকা গুলো সব Stock market এর উপর invest করার হয়। সেই কারণে এই মিউচুয়াল ফান্ডকে high risk & high retun মিউচুয়াল ফান্ড বলা হয়ে থাকে। কিন্তু আমি বলবো আপনি যদি মিউচুয়াল ফান্ডে ইনভেস্ট করতে চান তাহলে Equity funds এ ইনভেস্ট করুন। আমার মতে এখানে কোনো রকম রিস্ক নেই, থাকলে 10% কারণ মিউচুয়াল ফান্ড আপনার টাকাকে এক্সপার্ট দ্বারা ডিভার্সিফিকেশন করে ভিন্ন ভিন্ন কম রিস্ক থাকা কোম্পানির স্টকের উপর ইনভেস্ট করে। তাই আপনি যদি মিউচুয়াল ফান্ডস থেকে ইনকাম করতে চান তাহলে Equity mutual funds কোম্পানিতে ইনভেস্ট করুন। Equtiy fund এ আপনি কম হলেও minimum 15% তো retun পাবেনই এবং maximum 30-35%.

Debt mutual funds:

যারা মিউচুয়াল ফান্ডে ইনভেস্ট করতে চান কিন্তু কোনো রকম রিস্ক নিতে না চান তাদের জন্য Debt mutual funds. এই মিউচুয়াল ফান্ড সাধাণত Bond এর উপর ইনভেস্ট করে তাই এখানে কোনো রকম রিস্ক নেই তাই এখানে Retun rate এর পরিমান খুবই কম FD এর মতো 8% আমি বলবো আপনি যদি Debt ফান্ডে ইনভেস্ট করতে চান তাহলে মিউচুয়াল ফান্ডে না এসে ব্যাংকে FD করাটাই ভালো।

Hybrid mutual funds:

Hybrid mutual funds হলো Equity এবং Debt mutual এর সংমিশ্রণ। এখন আপনি Equity এবং Debt দুই ফান্ডের সুবিধা পাবেন। যারা কিছু টাকা Equity এবং কিছু টাকা Debt ফান্ডে রাখতে চান তাদের জন্য Hybrid mutual funds বেস্ট। এখানে রিস্ক খুবই কম তাই retun মিডিয়াম পাবেন 8-13%

কীভাবে মিউচুয়াল ফান্ডে ইনভেস্ট করবেন (How to invest in mutual funds in bengali):

মিউচুয়াল ফান্ডে অর্থ ইনভেস্ট করা এখনকার দিনে কোনো জটিল ব্যাপার নয়। এখন সবকিছুই অনলাইনে হয়েগেছে তাই মিউচুয়াল ফান্ড ও অফলাইনের পাশাপাশি অনলাইনে চলে এসেছে। যেকোন আপনি আপনার স্মার্টফোনের মাধ্যমে মিউচুয়াল ফান্ডে নিবেশ করতে পারেন। অনলাইনে বহু প্লার্টফর্ম রয়েছে যেখান থেকে আপনি মিউচুয়াল ফান্ডে অর্থ ইনভেস্ট করতে পারেন। মিউচুয়াল fund এবং শেয়ার বাজার পরস্পরের সঙ্গে অতোপ্রতো ভাবে জড়িত তাই যে app গুলিতে শেয়ার কেনা বেচা হয় ওখানেই আপনি মিউচুয়াল ফান্ডে ইনভেস্ট করতে পারেন। আমি যে app এ Invest করি সেটি হলো Groww, Groww app টি ইন্টারফেস খুব সিম্পল যে কেউ প্রথম বার use করলে সব কিছু বুঝে ফেলবে। আপনি চাইলে Groww app টির মাধমে মিউচুয়াল ফান্ডে ইনভেস্ট করতে পারেন।

Groww app Install link: https://app.groww.in/v3cO/s44iw94e

আমার শেষ কথা:

আপনি যদি অর্থ নিয়ে খুব সিরিয়াস তাহলে কখনো ব্যাঙ্কে টাকা ফেলে রেখে আপনার অর্থের value loss করবেন না। যদি পারেন তাহলে শেয়ার বাজারে ইনভেস্ট করুন। যদি শেয়ার বাজারে risk থেকে বিরত থাকতে চান তাহলে আপনার অর্থকে Asset menagement company বা মিউচুয়াল ফান্ডে ইনভেস্ট করুন তাহলেও আপনি বসে বসে টাকা মাল্টিপ্লাই করতে পারবেন। যদি আজকের এই আর্টিকেলটি ভালো লাগে তাহলে আপনার প্রিয় জনের সঙ্গে অবশ্যই শেয়ার করবেন এবং এই বিষয়ের উপর কোনো রকম প্রশ্ন থাকলে কমেন্ট করে জানাবেন। আর্টিকেলটি শেষ পর্যন্ত পড়ার জন্য ধন্যবাদ।

6 thoughts on “মিউচুয়াল ফান্ড কী । কীভাবে মিউচুয়াল ফান্ডে ইনভেস্ট করবেন (Mutual Funds)”

  1. Mutual funds সমন্ধে অনেক কিছুই লিখেছো দেখছি। খুবই ভালো হয়েছে।
    আমি সাধারণত ডাইরেক্ট স্টকে বিনিয়োগ করতে ভালোবাসি। শেয়ার মার্কেট সমন্ধে পুরো ডিটেইলসে জেনে নাও। কোনো দিন টাকার অভাব হবে না।
    সঙ্গে আমাদেরকেও জানিও।

    Reply
  2. This is the perfect blog for anybody who wants to find out about this topic. You know a whole lot its almost hard to argue with you (not that I actually would want toÖHaHa). You certainly put a fresh spin on a topic thats been written about for a long time. Excellent stuff, just wonderful!

    Reply

Leave a Comment